Thursday, December 1, 2022

Call +880 16306 80718

HomeFiverrফাইবার কি? ফাইবার কিভাবে কাজ করে?

ফাইবার কি? ফাইবার কিভাবে কাজ করে?

ফাইবার কি? ফাইবারে হল একটি ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস। ফাইবারে বায়ার কাজ দেয় ফ্রিল্যান্সারদের অ্যান্ড ফ্রিল্যান্সাররা কাজ করে বায়ারকে ডেলিভারি দেয়। প্রোজেক্ট সম্পূর্ণ ভাবে কমপ্লিট হওয়ার পর বায়ার ফ্রিল্যান্সারদের ডলার দেয়। নতুন ফ্রিল্যান্সারদের ফাইবার থেকে ফ্রিল্যান্সিং শুরু করা উচিৎ।

ফাইবার কিভাবে কাজ করে?

ফাইবারে মূলত দুই কাজে মানুষ আসে। ফ্রিল্যান্সাররা কাজ করার জন্য আর বায়ারা কাজ দেওয়ার জন্য

১। বায়ার বা ক্রেতা: বায়ার মূলত ফাইবার ব্যবহার করে তাদের অফিসিয়াল বা পার্সোনাল কাজ নিজে না করে ফ্রিল্যান্সারদের দিয়ে করায় এবং এর বিনিময়য় তারা ফ্রিল্যান্সারদের ডলার দেয়। এই ডলার পাওয়ার পর একটু ভাব বেড়ে যায় কিছু ফ্রিল্যান্সারদের 😉 বেশির ভাগ বায়ার হল আমেরিকান বা ইউরোপিয়ান। তবে কাজ করার আগে ফ্রিল্যান্সারদের বুঝার চেষ্টা করতে হবে বায়ার প্রতারক নাকি ভাল বায়ার। দিন দিন ফাইবারে দুষ্ট বায়ার বৃদ্ধি পাচ্ছে


2. ফ্রিল্যান্সার: ফ্রিল্যান্সাররা বায়ারের কাজ করে দেন। ফ্রিল্যান্সারা আগে কোন একটা বা একের অধিক কাজ শিখে তারপর কাজ করার জন্য ফাইবারে অ্যাকাউন্ট খুলে। তারপর উরাধুরা ইনকাম শুরু করে ফ্রিল্যান্সারা, আবার কেও প্রোজেক্ট না পাওয়ার কারণে হতাশ হয়ে যায় । 😪 হতাশ না হওয়ার জন্য আপনাকে আগে ভালভাবে কাজ শিখতে হবে তারপর টুকি টাকি মার্কেটিং শিখতে হবে। তাহলে হতাশ হওয়ার সম্ভাবনা কম। ফাইবার কি? এই সম্পর্কে আমরা ধারণা পেলাম।এবার আমরা জানার চেষ্টা করবো ফাইবারে কি কি স্কিল্ল নিয়ে কাজ করা যেতে পারে।

ফাইবারে কি কি কাজ পাওয়া যায়?

ফাইবারে অনেক ধরণের কাজ পাওয়া যায়। তবে কিছু কোমন কাজ আছে এজগুলো সব থেকে বেশি বিক্রি হয়। এই কোমন স্কিল গুলোর মধ্যে আপনার যদি কোন একটা স্কিল শিখা থাকে তাহলে আপনিও ইনকাম করার জন্য ফাইবারে অ্যাকাউন্ট খুলে কাজ করতে পারবেন। ফাইবারে সব থেকে বেশি সেল্ল হওয়া স্কিল গুলো হলঃ

  • ওয়েব ডিজাইন
  • ওয়েব ডেভলপমেন্ট
  • ডিজিটাল মার্কেটিং
  • আর্টিকেল রাইটিং
  • গ্রাফিক্স ডিজাইন
  • ভিডিও এডিটর
  • ভার্চুয়াল এসিস্ট্যান্ট
  • ডাটা এন্ট্রি
  • এনএফটি আর্ট

এর বাহিরেও অনেক কাজ আছে যেমন ইমেইল মার্কেটিং, অ্যাপ ডেভলপমেন্ট, এফিলিয়েট মার্কেটিং, ইমেজ এডিটিং, ড্রপশিপিং ইত্যাদি।আমরা চাইলে এই স্কিল্ল গুলোর মধ্যে যেকোনো একটা শিখে ফ্রিল্যান্সিং শুরু করতে পারি। কিছু সস্তা বা কমদামী স্কিল আছে যেগুলো দিয়ে সফল হওয়া কঠিন। কারণ সস্তার সবজায়গার বারো অবস্থা। এই সব সস্তা স্কিল শিখতে ২-৪ দিন লাগে যার কারণে অনেকেই তাড়াতাড়ি ইনকাম করার জন্য এইসব কাজ শিখে মার্কেটপ্লেসে সময় নষ্ট করে।

ফাইবার বায়ার রিকোয়েস্ট কি?

ফাইবার বায়র রিকোয়েস্ট হল যখন কোন বায়ার তার কাজ টি করে নেওয়ার জন্য প্রোজেক্ট পোস্ট করে সেটাকে বায়ার রিকোয়েস্ট বলা হয়। প্রোজেক্ট পোস্ট হওয়ার পর ফ্রিল্যান্সাররা সেই প্রোজেক্ট টি করার জন্য বায়ারকে প্রস্তাব সেন্ড করে। এর পর যার প্রপসাল বা যাকে ভাল লাগে তাকে প্রোজেক্ট দিয়ে দেয়।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -
Google search engine

Most Popular